মঙ্গলবার, ২৯ সেপ্টেম্বার ২০২০ ,

প্রকাশ :২৪ ফেব্রুয়ারী ২০২০ , ০৯:৫৪ PM

যা দেখি তার সবই মন্দ

single image

ট্রাফিক সিগন্যালে দাঁড়িয়ে থাকা একজন পুলিশ কিংবা আনসারকে টাকা চাইতে দেখে আপনি খুব প্রতবাদী হয়ে উঠছেন...! ৫০/১০০ কিংবা ৫০০ এটুকুই সহ্য হয়না আপনাদের? কিন্তু সমাজটাকে ধ্বংসের পথে ঠেলে দিয়ে যারা দিনের পর দিন হাজার হাজার কোটি টাকা লোপাট করছে তাদের নিয়ে কোন ভাবনাই নেই। কি হবে আপনাদের দিয়ে...!

ধুর মিয়া নিজের চরকায় তেল দেন। পরিবার পরিজন নিয়ে ভালো থাকেন। যান।

কে বলবে এসব কথা..? টাকা পাইলে সবাই ঠান্ডা। পুলিশ, সাংবাদিক, আইনজীবী সবাই বিক্রি হয়।

তাহলে আর কি..?

আসলেই তো, এরপরই সব থেমে যায়।

সত্যিই সবকিছু থমকে গেছ। উন্নয়েনর নামে হাজার হাজার কোটি টাকার প্রকল্প করে লোকসান গুনছে সরকারী অধিকাংশ দপ্তর। জনগণের পকেট কেটে সুদে আসলে সে টাকা শোধ করতে হচ্ছে। প্রায় সব অধিদপ্তরে বড় বড় চেয়ার ১০-১২ বছর ধরে দখল করে আছেন অযোগ্য অপদার্থ কর্তারা। দিনের পর দিন টেলিভিশন কিংবা পত্রিকায় প্রতিবেদন প্রকাশিত হলেও কারো কোনো বিকার নেই। বাধ্য হয়ে অনেকে চুপ হয়ে গেছেন। কেউবা হাত মিলিয়ে তথাকথিত সুখী জীবন যাপন করছেন।

তার মানেটা কি?

এভাবে আর কত..?

সরকারি এক পিয়নকে দেখলাম প্রাডো গাড়ী নিয়ে বাজার করতে। হা হা হা বিয়ষটা অন্যভাবে নিবেন না। মজা পাইছি। ছাপোষা লোকটা অফিসে অতিসাধারণ পোষাক পড়লেও বাজার করছেন সুট কোট পরে। খোঁজ নিয়ে জানলাম রাজধানীতে পাঁচ কাঠা জায়গার ওপর তার বহুতল বিলাসবহুল একটি বাড়ীও আছে।

সে যাকগে সামান্য পিয়ন টিয়ন (পুঁটিমাছ)-দের নিয়ে ভাবার সময় নাই। তবে

রিক্সা ওয়ালাদের ঘামে ঝড়ানো ১০ টাকা নেয়া ওই আনসার সদস্যের প্রতি আমি যেমন প্রচন্ড ক্ষুব্ধ। তেমনি জনগণের হাজার কোটি টাকা লোপাট করে বিদশে পাচারকারীদের টুটি চেপে ধরে মরা আর বাঁচার মাঝখানে দুটি কথা বলতে ইচ্ছে করে....

লেখক: সংবাদকর্মী

এই বিভাগের আরো খবর ::

Image

নামাজের সময়সূচী

সূর্যোদয় ভোর ৫ : ৪০ টা
ফজর ভোর ৬ : ০০ টা
যোহর দুপুর ১: ০০ টা
আছর বিকাল ৪ : ৩০ টা
মাগরিব সন্ধা ৬ : ৩০ টা
এশা রাত ৮ : ১৫ টা
সূর্যাস্ত সন্ধ্যা ৬ : ০০

অনলাইন জরিপ

আওয়ামী লীগের সাধারণ সম্পাদক ওবায়দুল কাদের বলেছেন, ‘সিটি নির্বাচনে নিশ্চিত পরাজয় জেনেই বিএনপি নির্বাচনকে প্রশ্নবিদ্ধ করার চেষ্টা করছে।’ আপনি কি তা-ই মনে করেন?